banner

মাটি থেকে উঠে ক্রমে আকাশের বুকে মিশে গেছে ঝড়ের ধূসর শরীর! ধেয়ে আসছে টর্নেডো- দূর থেকে এমনটাই মনে হচ্ছে। কিন্তু না, এটা ঝড় না। এটা আসলে মশার ঝাঁক! আর্জেন্টিনায় দেখা গেছে এমনই দৃশ্য। আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমের খবরে এমন তথ্য জানা গেছে।

খ্রিস্টান গারাভাগলিয়া নামের এক ব্যক্তি এই ঘটনার একটি ভিডিও শেয়ার করেছেন সামাজিক যোযোগমাধ্যমে। সেখানে দেখা যায়, একটি গাড়ি এগিয়ে যাচ্ছে সামনের দিকে। গাড়িটির সামনেই টর্নেডোর মতো রূপে দেখা যায় মাশাদের।

বুয়েনস আয়ার্সের হাইওয়েতে এমন দৃশ্য দেখার পর ভিডিও করা সেই ব্যক্তিও আতঙ্কিত হয়ে যান। আতঙ্কিত সুরে স্প্যানিশ ভাষায় তাকে বলতে শোনা যায়, ‘এটা ক্রমেই বড় হচ্ছিল। এমনটা আমি এর আগে কখনও দেখিনি।’ 

ব্যাপারটাকে মোটেই ভালোভাবে নিচ্ছেন না পরজীবী বিশেষজ্ঞরা। অনেকেই এতে সিঁদুরে মেঘ দেখেছেন। জুয়ান জোস গার্সিয়া নামের এক বিশেষজ্ঞের দাবি, বুয়েনস আয়ার্সে বেশ কয়েকদিন ধরে প্রবল বৃষ্টি হয়েছে। ফলে বহু জায়গায় পানি জমে গেছে। যার ভেতরে ইচ্ছেমতো ডিম পেড়েছে মশার দল। এর ফলে রাতারাতি প্রচুর পরিমাণে সংখ্যাবৃদ্ধি ঘটেছে তাদের। তারই ফলশ্রুতি ওই টর্নেডোর আকারে মশার ঝাঁক।

গার্সিয়ার আশঙ্কা, ওই মশার দল চাইলে শহরও প্রবেশ করতে পারে। এই মাশাগুলো মানুষের জীবন-মরণের হুমকি তৈরি করবে না। তবে ক্ষতির মুখে পড়তে পারে কৃষিকাজ।

সূত্র: সংবাদ প্রতিদিন, ডেইলি মেইল।

banner